২২ শে এপ্রিল নাটক রিভিউ [22 Shey April Bangla Natok]

২২ শে এপ্রিল নাটক

মৃত্যুর মুখে বসে আছেন আর প্রতিটা সেকেন্ড গুনছেন শেষ নিঃশ্বাসের অপেক্ষায়! আর এরকম মুহূর্তে ফোনের ওপারে শেষবারের মত শুনছেন প্রিয়জনের কন্ঠ। কতটা ভয়ংকর, বিষাদময় আর ভালোবাসায় মাখা মুহূর্ত হতে পারে সেটি? কল্পনা করেও যেটি ভাবনায় ফুটিয়ে তোলা কঠিন। ছোটপর্দায় এবারে সেরকমই চিত্র ফুটিয়ে তোলার চেস্টা করেছেন জনপ্রিয় পরিচালক মিজানুর রহমান আরিয়ান।

বহুল আলোচিত ‘২২ শে এপ্রিল’ নাটকটি অবশেষে প্রচারিত হয়েছে এনটিভির পর্দায়। ঈদের দ্বিতীয় দিনে দুপুর ২টায় এনটিভির পর্দায় প্রচারিত হয় নাটকটি। একঝাঁক তারকায় ঠাসা নাটকটি মূলত বনানীর এফ আর টাওয়ারে ঘটে যাওয়া দুর্ঘটনাটিকে ভিত্তি করে বানানো। বানিয়েছেন বড় ছেলে খ্যাত এ সময়ের জনপ্রিয় নাট্যনির্মাতা মিজানুর রহমান আরিয়ান।

এক নজরে ২২ শে এপ্রিল নাটক [22 Shey April]

সোশ্যাল মিডিয়ায় টিজার প্রকাশের পরই সব শ্রেনীর দর্শকদের মাঝে সাড়া ফেলেছিল ‘২২ শে এপ্রিল’ টেলিছবিটি। এরপর থেকেই আলোচনার তুঙ্গে ছিল মিজানুর রহমান আরিয়ানের পরিচালিত এই টেলিছবি। আলোচনায় থাকবেইনা বা কেন? কারণ, কোন দিক দিয়েই দর্শক কমতি খুঁজে পায়নি আরিয়ানের এই কাজটিতে। প্রথমত, ‘২২ শে এপ্রিল’ -এর গল্পটি ছিল বনানীর এফ আর টাওয়ারের ট্রাজেডিকে ভিত্তি করে। দ্বিতীয়ত, চলতি সময়ের সবচেয়ে জনপ্রিয় তারকাদের দেখা মিলবে এক ফ্রেমে। তৃতীয়ত, সাড়া জাগানো নাটক বড় ছেলের কারিগর আরিয়ানের তৈরি টেলিছবি হল ‘২২ শে এপ্রিল’। সব মিলিয়ে দর্শকদের মাঝে অপেক্ষা আর উত্তেজনার মাত্রা ছিল দেখার মত।

‘২২ শে এপ্রিল’ টেলিছবিতে অভিনয় করেছে ইরেশ যাকের, জিয়াউল ফারুক অপূর্ব, মনোজ প্রামাণিক, মেহজাবিন চৌধুরী, মাসুমা রহমান নাবিলা, তানজিন তিশা দিলারা জামান, শহীদুজ্জামান সেলিম, শহিদুল আলম সাচ্চু, রাশেদা চৌধুরী, দীপা খন্দকার, তামিম মৃধাসহ আরও অনেকে। শেষ দৃশ্যের বিশেষ চরিত্রে দেখা মিলবে আফরান নিশোকেও। বলতে গেলে, ছোট পর্দার কোন নাটক বা টেলিছবিতে এবারই প্রথম এতোগুলো জনপ্রিয় তারকার উপস্থিতি। যদিও কিছুদিন আগে ‘দ্বিতীয় কৈশোর‘ নামের একটি নাটকে একসাথে দেখা গিয়েছিল তাহসান, অপূর্ব এবং নিশোকে। এক পর্দায় তিন তারকার উপস্থিতির কারণে সেইসময় হিট করেছিল দ্বিতীয় কৈশোর নাটকটিও। এবারে সেটির রেকর্ড ভেঙ্গে ফেলল ‘২২ শে এপ্রিল’।

এবারে আসা যাক, পরিচালকের ব্যাপারে। ভালোবাসার গল্পকথক হিসেবে পরিচিত এ সময়ের জনপ্রিয় নাট্যনির্মাতা মিজানুর রহমান আরিয়ান। তাঁর পরিচালিত ‘বড় ছেলে’ নাটকটি গত ঈদে কাঁদিয়েছিল দর্শকদেরকে। এ পর্যন্ত নাটকটি ইউটিউবে দেখা হয়েছে ২ কোটিবার। সেই আলোচিত বড় ছেলে খ্যাত পরিচালক আরিয়ান এবার নিজেই ভাঙলেন নিজের রেকর্ড। ভিউয়ের দিক দিয়ে নয়, এবার মানের দিক দিয়ে রেকর্ড ভেঙ্গেছে ২২ শে এপ্রিল। বড় ছেলে নাটকটি দেখে যতটা না কেঁদেছে দর্শক। এবারে ২২ শে এপ্রিলে কেঁদেছে তার চেয়ে বেশি। শেষ দৃশ্যের ১৫-২০ মিনিট পুরোটাই প্রত্যেক দর্শককে চোখের পানি ফেলতে বাধ্য করবে। এতোটাই মর্মস্পর্শী ছিল এই ২২ শে এপ্রিল। ঈদ কিংবা ভ্যালেন্টাইন ডে’র মত প্রতিটি উৎসবেই মিজানুর রহমান আরিয়ান চেস্টা করেন বিশেষ একটি করে কাজ দেয়ার। এবারেও ব্যতিক্রম হয়নি। মানের দিক দিয়ে এবারেও নিজের রেকর্ড ভেঙেছেন নিজেই। শত শত রোমান্টিক ভালোবাসার নাটকের মাঝেও মিজানুর রহমান আরিয়ান যে ভালোবাসার সত্যিকারের গল্পকথক। তার প্রতিটি স্বাক্ষর রেখেছেন তাঁর কাজগুলোতে। সম্পূর্ণ ভিন্নধর্মী এবং ভিন্ন গল্পের ‘২২ শে এপ্রিল’ নাটকেও সব ঘটনা ছাপিয়ে উঠে এসেছে সত্যিকারের ভালোবাসার অনুভূতিগুলো।

২২ শে এপ্রিল টেলিছবি

২২ শে এপ্রিলের গল্পের ব্যাপারে না বললেই নয়! বাবা-মেয়ের গল্প, পরিবারের গল্প, অভিমানের গল্প, মিষ্টি প্রেমের গল্প, প্রতিবাদী নারীর গল্প! অনেকগুলো গল্প মিলিত হয়েছে একই গল্পে, একই স্থানে, একই দিনে। বাকি গল্পটা সবারই এক রকম। টেলিছবিটির টিজার প্রকাশের পরপরই অবশ্য দর্শকরা গল্পটি সম্পর্কে ধারনা পেয়েছিল। কারণ, এটি নির্মিত হয়েছে বনানীর এফ আর টাওয়ারে আগুন লাগার ঘটনাটিকে কেন্দ্র করে। তাই গল্পের ধারনা পূর্বেই অনুমান করা যাবে খুব সহজেই। কিন্ত গল্পটি এখানে মূখ্য বিষয় মনে হয়নি। প্রতিটি চরিত্রের অভিনয় আর শেষ ১৫-২০ মিনিটে হৃদয়বিদারক দৃশ্য গুলো দেখা আর অনুভব করাই ছিল এই টেলিছবির মূল বিষয়বস্ত। আমরা মানুষগুলো ভিন্ন হলেও, আমাদের জীবনের গল্প গুলো একেকটা একেকরকম হলেও মৃত্যুর মুখে দাঁড়িয়ে আমাদের ভালোবাসার অনুভূতিগুলো যে একইরকম হয়। সেটা অক্ষরে অক্ষরে অনুভব করেছি শেষে। চোখের পানি ফেলতে হয়েছে টানা ১৫-২০ মিনিট। ২২ শে এপ্রিলে বাড়তি মাত্রা যোগ করেছে পিন্টু ঘোষের গাওয়া একটি গান। হৃদয়স্পর্শী দৃশ্যগুলোর সাথে মিলিয়ে ব্যাকগ্রাউন্ড মিউজিকটিও ভাল লেগেছে।

সব মিলিয়ে ২২ শে এপ্রিল ১০০ তে ১০০ পাওয়ার যোগ্যতা থাকলেও দর্শকমনে ক্ষোভের দেখা মিলেছে অন্য বিষয়ে। মূলত, বর্তমান সময়ের জনপ্রিয় প্রায় সব নাটকই প্রচারিত হয়ে থাকে ইউটিউবে। টেলিভিশনে প্রথম প্রচার হয়ে থাকলেও টিভি চ্যানেলে প্রচারের পরপরই তা পাওয়া যায় ভিডিও শেয়ারিং সাইট ইউটিউবে। টিভি চ্যানেলগুলোর মাত্রাতিরিক্ত বিজ্ঞাপনে বিরক্ত দর্শকরা এখন বলতে গেলে পুরোপুরিই ইউটিউবমুখী। তবুও ভাল নাটক দেখার প্রয়োজনে অনেক সময়ই অনিচ্ছা স্বত্বেও টিভি চ্যানেলের সামনে বসতে হয় দর্শকদের। ইউটিউবে প্রচারিত হবেনা ‘২২ শে এপ্রিল’ টেলিছবিটি। এমন ঘোষণার পর অনেকটা বাধ্য হয়েই টিভি চ্যানেল দেখতে বসেছিল দর্শকরা। কিন্ত বরাবরের মত মাত্রাতিরিক্ত বিজ্ঞাপন আবারো ক্ষুব্ধ করেছে দর্শকদের। অনেক দর্শকের মতে, এরকম হৃদয়স্পর্শী নাটকেরও মান হারিয়েছে নাটকের মাঝে মাত্রাতিরিক্ত বিজ্ঞাপন প্রদর্শনের জন্য। এছাড়া, টিভি চ্যানেলে প্রচারের পর ইউটিউবে রিলিজ না দেওয়ায় দর্শকরা আরও ক্ষোভ প্রকাশ করেছে সোশ্যাল মিডিয়া প্লাটফর্ম ফেসবুকে। টেলিছবিটি প্রচার করেছে বেসরকারি টিভি চ্যানেল এনটিভি

যেভাবে দেখবেন ২২ শে এপ্রিল [Watch Now Baishey April Natok]

ইতিমধ্যেই আপনারা জেনেছেন, ২২ শে এপ্রিল টেলিছবিটি প্রচারিত হয়েছে ঈদের দ্বিতীয় দিন দুপুর ২টায় শুধুমাত্র এনটিভির পর্দায়। ইউটিউবে রিলিজ দেওয়া হবেনা বলেও ঘোষণা দিয়েছে প্রযোজক প্রতিষ্ঠান। তাই অনেকেই মিস করে ফেলেছেন এবারের ঈদে মিজানুর রহমান আরিয়ানের সেরা এই কাজটি। যদিও দর্শকদের বিপুল পরিমান সাড়ার কারণে টিভি চ্যানেলে পুনঃপ্রচার হতে পারে কিংবা ইউটিউবে রিলিজ হতে পারে ‘২২ শে এপ্রিল’। তবে অনলাইনে বেশ কিছু ওয়েবসাইটে আনঅফিসিয়ালি পাওয়া যাচ্ছে ২২ শে এপ্রিলের রেকর্ডেড ভার্সন। কপিরাইট ইস্যুর কারণে ডাউনলোড লিংক শেয়ার করা সম্ভব হচ্ছেনা। ধন্যবাদ…

 

ঈদ নাটক: ২২ শে এপ্রিল
পরিচালনায় : Mizanur Rahman Aryan

Posted by Ziaul Faruq Apurba on Saturday, 25 May 2019

আরও কিছু পোস্ট

৫টি মন্তব্য

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *